Sharsha Upozila Chatro league Rumel Sardar program

শার্শা উপজেলা ছাত্রলীগের উদ্যেগে জাতীয় শোক দিবস পালন

রাজনীতি

জাতীয় শোক দিবস উপলক্ষে যশোরের শার্শা উপজেলা ছাত্রলীগ নেতা মোঃ জাবের রেজওয়ান রুমেলের উদ্যেগে দোয়া মাহফিলের আয়োজন করা হয়। এছাড়াও বৃক্ষরোপণ ও দুস্থদের মধ্যে খাদ্য বিতরণ করা হয়েছে।

গত ১৫ আগস্ট জাতীয় শোক দিবসে সারাদিন ব্যাপী নানান কর্মসূচি বাস্তবায়ন করে শার্শা উপজেলা আওয়ামীলীগ এবং এর অঙ্গ ও সহযোগী সংগঠন গুলো।

তারই ধারাবাহিকতায় শার্শা উপজেলা ছাত্রলীগের সভাপতি পদপ্রার্থী মোঃ জাবের রেজওয়ান রুমেল এর উদ্যোগে ১৯৭৫ সালের ১৫ই আগস্টে নিহত বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান সহ সকল শহীদদের আত্মার মাগফিরাত কামনায় মাদ্রাসায় দোয়া মাহফিলের আয়োজন করা হয়।

এরপর শার্শা উপজেলার কয়েকটি বিদ্যালয় প্রাঙ্গণে বৃক্ষরোপণ কর্মসূচি পালন করেন ছাত্রলীগের নেতৃবৃন্দ। বৃক্ষরোপণ কর্মসূচি শেষে বিকালে উপজেলার নাভারনে দুস্থদের মাঝে খাবার বিতরণ করেন তারা।

এ বিষয়ে জানতে চাইলে বাংলানিউজ ইনফোকে শার্শা উপজেলা ছাত্রলীগের সভাপতি পদপ্রার্থী মোঃ জাবের রেজওয়ান রুমেল বলেন, “১৯৭৫ সালের ১৫ই আগস্ট বাংলাদেশের জন্য ছিলো একটি বিভীষিকাময় দিন। সেই দিন বাংলাদেশ সেনাবাহিনীর কিছু বিপদগামী সেনা সদস্যরা ধানমন্ডি ৩২নং বঙ্গবন্ধুর বাড়িতে বঙ্গবন্ধু ও তাঁর সহধর্মিণী সহ ১৬ জনকে সহ সর্বমোট ২০ জনকে নৃশংস নির্মমভাবে হত্যা করা হয়। এই হত্যার মাধ্যমে খন্দকার মোশতাক ও জিয়াউর রহমান দেশে কারফিউ জারি করে স্বাধীন দেশ দখল করে নিয়ে দেশের স্বঘোষিত প্রেসিডেন্ট হয় খুনি মোশতাক। সেই দিন বঙ্গবন্ধু হত্যাকাণ্ডের সাথে জড়িত ছিলো তৎকালিন বিপথগামী সেনাবাহিনী সদস্য ছাড়াও জিয়াউর রহমান।”

Sharsha Upozila Chatro league program

তিনি আরও বলেন, “বঙ্গবন্ধু হত্যাকাণ্ডে জড়িত ছয়জনের এখন পর্যন্ত ফাঁসি হয়েছে৷ বাকি আছেন আরো পাঁচজন৷ তারা হলেন আব্দুর রশীদ, শরীফুল হক ডালিম, মোসলেম উদ্দিন, রাশেদ চৌধুরী ও এবিএমএইচ নূর চৌধুরী৷ রাশেদ চৌধুরী যুক্তরাষ্ট্রে এবং নূর চৌধুরী ক্যানাডায় অবস্থান করছেন। অন্যদিকে আব্দুর রশীদ, শরীফুল হক ডালিম ও মোসলেম উদ্দিনেকে খুঁজে দেশে ফুরিয়ে এনে ফাঁসির রায় কার্যকর করতে হবে। আমরা শার্শা উপজেলা ছাত্রলীগের পক্ষ থেকে বাংলাদেশ সরকারের পররাষ্ট্র ও স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের কাছে আবেদন করছি যে ১৯৭৫ সালের ১৫ই আগস্টের হত্যার সাথে জড়িত আসামীদের কে দেশে ফিরিয়ে এনে ফাঁসির রায় কার্যকর করতে হবে।”

এসময় অন্যান্যদের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন শার্শা উপজেলা ছাত্রলীগ নেতা আপেল মাহমুদ আকাশ, আলফিদুল শোভন, শাকিরুল আলম প্রিমন, হাসিবুল হাসান সিয়াম, শামিম হোসেন, খালিদ হাসান শাওন, ইমরান হোসেন, নয়ন সদার, মাহাদী হাসান ফয়সাল, এস কে শাকিল, আসিফ সরদার, কাইয়ুম ও ছাত্রলীগের অন্যান্য নেতৃবৃন্দ।