আকবর

ইত্যাদির সংগীতশিল্পী খ্যাত আকবর আর নেই

বিনোদন

জনপ্রিয় ম্যাগাজিন অনুষ্ঠান ‘ইত্যাদি’তে গান গেয়ে পরিচিতি পাওয়া গায়ক আকবর আর নেই। রোববার দুপুর ৩টায় বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব মেডিক্যাল বিশ্ববিদ্যালয়ে (বিএসএমএমইউ) শেষ নিঃশ্বাস ত্যাগ করেন আকবর। 

সেখান থেকে তার মরদেহ মিরপুরের বাসায় নিয়ে যাওয়া হবে। সেখানেই হবে প্রথম জানাযা। এরপর গ্রামের বাড়ি যশোরে নিয়ে যাওয়া হবে গায়ক আকবরের মরদেহ।

বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন আকবরের স্ত্রী কানিজ ফাতেমা। তার কন্যা অথৈ ফেসবুকে লিখেছেন, ‘আব্বু আর নেই’। শরীরে নানা জটিল রোগের পাশাপাশি কিডনির, ডায়াবেটিসের মতো দীর্ঘমেয়াদী রোগও দানা বাধে শরীরে। 

শরীরে পায়ের অংশে পচন ধরলে চিকিৎসার জন্য হাসপাতালে নেয়া হয়। সেই সময় চিকিৎসকরা জানান, হাসপাতালে আনতে বেশ দেরি করে ফেলেছে আকবরের পরিবার। পায়ের পচন হাড় পর্যন্ত পৌঁছে গেছে। কিডনি, লিভারসহ একাধিক জটিলতায় ১৬ অক্টোবর এক পা কেটে ফেলা হয় আকবরের।

বারডেম হাসপাতালের ইনটেনসিভ কেয়ার ইউনিটে (আইসিইউ) ভর্তি হওয়া গায়ক আকবরের অস্ত্রোপচারের পর তার শারীরিক অবস্থা আরও খারাপের দিকে গেলে আইসিইউতে নেওয়া হয়। 

দীর্ঘ ১০ বছর ধরে জীবন মৃত্যুর মাঝপথে লড়াই করে আজ না ফেরার পথে পাড়ি জমালেন কণ্ঠশিল্পী আকবর। ‘একদিন পাখি উড়ে যাবে’ গানটিকে সত্যি করে দিয়ে নিরবে নিভৃতেই যেন চলে গেলেন তিনি। গতকাল রাতে সময়ের আলোকে তার স্ত্রী বলেন, ‘আজ ৭০ লিটার অক্সিজেন লাগছে। কি যে হবে জানি না।’ সেই শঙ্কাই যেনো সত্যি হল।

দীর্ঘদিন ধরে অসুস্থ আকবর আলী গাজী। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা তার চিকিৎসার জন্য ২০ লাখ টাকা অনুদান দিয়েছেন। ‘তোমার হাত পাখার বাতাসে’ গানের এই শিল্পী যশোর শহরে রিকশা চালাতেন। ‘ইত্যাদি’তে গান গাওয়ার পর তার ভাগ্য বদলে যায়।